July 30, 2021

Sylhet Amar Sylhet

www.sylhetamarsylhet.com

সাহিত্য চর্চা করতে যেয়ে নজরুল তার উৎস ও ঠিকানা ভুলে যাননি—- দুর্নীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরাম

দুর্নীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরামের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মকসুদ হোসেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম এর ১২২তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করে বলেন, রবীন্দ্র ও নজরুলের জন্ম না হলে বাংলা সাহিত্য উপমহাদেশে প্রতিষ্ঠা ও সমৃদ্ধ লাভ করতে পারতো না।

বৃটিশ বিরোধী সংগ্রাম ও বাঙালি সহ এ অঞ্চলের মাটি ও মানুষের সংগ্রামে তার লেখনি যুদ্ধের অস্ত্রের মত কাজ করেছে। ইসলামের মূল মর্মবাণী সাহিত্যের মাধ্যমে তিনি বিশ্ব দরবারে তুলে ধরেছেন। সৃষ্টি কুলের সেরা ব্যক্তি, ইসলাম ধর্মের শেষ নবী হযরত মুহাম্মদ সা. এর উপর তাঁর নাত ও কবিতা ইসলামী সাহিত্যকে সমৃদ্ধ করেছে। অসম্প্রদায়িক ও মানবতাবাদী সমাজ গঠনের লক্ষ্যে নজরুলের ভূমিকা অতুলনীয়। তার লেখনী দ্বারা অন্যান্য ধর্মাবলম্বীরাও উপকৃত হয়েছেন।

কবি নজরুল ইসলামকে দেশ স্বাধীন হওয়ার পর ভারত থেকে বাংলাদেশে এনে জাতীয় কবির মর্যাদা দেয়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কাছে বাঙালি জাতি চিরকৃতজ্ঞ। দুখু মিয়া ও বিদ্রোহী বলে নজরুলকে আখ্যায়িত করা যাবে না। কারণ নজরুল সৃষ্টিকর্তার প্রতি আনুগত্য দেখিয়ে দুনিয়াতে তার নমুনা ফোটে তুলেছেন। তিনি সব বিষয়ে বিদ্রোহী ছিলেন না। তিনি শোষণ, লুন্ঠন ও কাঠমোল্লাদের বিরুদ্ধে সোচ্চার ছিলেন।

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১২২তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে ১১ জৈষ্ঠ্য, ২৫ মে মঙ্গলবার ১১টায় সিলেট নগরীর রিকাবীবাজারস্থ নজরুল চত্বরে জমায়েত শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ শেষে মঞ্চে দোয়া মাহফিল পূর্ব আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মকসুদ হোসেন উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

কেন্দ্রিয় সিনিয়র সহ সভাপতি ইকবাল হোসেন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ অরুণ কুমার দেব, প্রচার সম্পাদক আব্দুল করিম পাখী মিয়া, কেন্দ্রীয় সদস্য আব্দুল মুতাওয়াল্লী ফলিক, আমিরুল হোসেন চৌধুরী আমনু, রফিকুল ইসলাম শিতাব, যুব শ্রমিক নেতা আদনান খান হেলাল, দুর্নীতি মুক্তিকরণ বাংলাদেশ যুব ফোরামের সিনিয়র সহ সভাপতি ইমাম হোসেন, আমীন তাহমীদ, সাংগঠনিক সম্পাদক রখিন তালুকদার রিকন, কিশোর শাহী ইসলাম মারুফ প্রমুখ।