September 19, 2021

Sylhet Amar Sylhet

www.sylhetamarsylhet.com

ত্বকের যত্নে দই

মিষ্টি জাতীয় খাবারের মধ্যে অন্যতম দই। দেশের যেকোনো আয়োজনে দই থাকবেই। দই ছাড়া মিষ্টির স্বাদ কোনোভাবেই সম্পূর্ণ নয়। তবে দই যে শুধু খাওয়া যায় এমনটা কিন্তু নয়। ত্বকের যত্নেও দই চমৎকার ভূমিকা রাখে।

ত্বকে দই নানাভাবে কাজ করে। ত্বকের টানটান ভাব দূর করতে সক্ষম। ত্বকে পাতলা করে দই ম্যাসাজ করতে হবে এবং ১০ থেকে ১৫ মিনিট রেখে দিতে হবে।

তবে আধা কাপের মতো বেসনের সাথে ৪ থেকে ৫ টেবিল চামচ দই এবং কয়েক ফোটা লেবুর রস অথবা গোলাপজল মিশিয়ে একটি প্যাক বানিয়ে সেটা ত্বকে লাগাতে হবে। শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে।

প্রাকৃতিক ময়েশ্চারাইজার হিসেবেও দই ব্যবহার করা যেতে পারে। ত্বক যতই শুষ্ক হোক না কেন, দই ত্বককে হাইড্রেট রাখে। ত্বকের গুনাগুণ বহুগুণ বাড়িয়ে তোলে। পরিমাণমতো দই নিয়ে তাতে এক চামচ মধু মিশিয়ে নিতে হবে। প্যাকটি ত্বকে এবং ঘাড়ে ম্যাসাজ করতে হবে। ভালো করে ম্যাসাজ করে ১০ মিনিটের জন্য রেখে দিতে হবে। অতঃপর ধুয়ে নিতে হবে।

দই ত্বকে ব্রণ উঠার প্রবণতা কমিয়ে আনে। এতে উপস্থিত অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ফাঙ্গাল বৈশিষ্ট্যের কারণে ত্বকে ব্রণ উঠতে পারেনা। অল্প পরিমাণে দই নিয়ে তাতে কয়েক ফোঁটা গোলাপজল মিশিয়ে নিতে হবে। সপ্তাহে দিন, রাতে ঘুমানোর আগে ব্যবহার করতে হবে। কমপক্ষে ১০ মিনিট রেখে ধুয়ে নিতে হবে। দইয়ের সব থেকে ভালো দিক হলো এটি ত্বকে ব্রণের কোনো দাগ পড়তে দেয় না।