September 23, 2021

Sylhet Amar Sylhet

www.sylhetamarsylhet.com

ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জে ত্রাণ ও সার বীজ বিতরণ করেন মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী এমপি

সিলেট-৩ আসনের এমপি মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী ১৪ এপ্রিল মঙ্গলবার দিনব্যাপি ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জের কর্মহীন লোকদের মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে ত্রাণ ও কৃষকদের মধ্যে সার, বীজ বিতরণ করেন।

এমপি মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী পৃথক, পৃথক ভাবে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার মাইজগাঁও ইউনিয়নে, উত্তর কুশিয়ারা ইউনিয়নে, বালাগঞ্জ উপজেলার পুর্ব গৌরীপুর ইউনিয়নের হত দরিদ্র লোকদের মধ্যে ত্রাণ এবং ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জ উপজেলার কৃষকদের মধ্যে বিনামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ করেন।

এ সময় তিনি সরকারি সুযোগ সুবিধা নিতে আসা লোকদের বলেন, করোনা ভাইরাস রোগ একটি সংক্রমণ ব্যাধি। এ রোগের প্রাদুর্ভাব থেকে মুক্ত থাকতে হলে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে প্রত্যেককে ঘরে থাকতে হবে। বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা দেশকে করোনা ভাইরাস মুক্ত রাখতে সরকারি নির্দেশনা প্রদান করেছেন। এ নির্দেশনা মেনে চলার জন্য সর্বস্তরের জনসাধারণের প্রতি আহবান জানান।

তিনি বলেন, বর্তমান সরকার এই সংকট উত্তরনের জন্য যথাযথ পদক্ষেপ নিয়েছেন। কর্মহীন লোকদের মধ্যে বিভিন্ন ভাবে সরকারি ত্রাণ তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। ত্রাণ বিতরণে কোন ধরনের অনিয়ম ও দুর্নীতি কেউ করলে কঠোর হস্তে দমন করা হবে। সরকারের মূল লক্ষ্য প্রকৃত মানুষ যাতে সরকারি ত্রাণ পায়। আমার নির্বাচনী এলাকার জনগণ সরকারি ত্রাণ যাতে সঠিক ভাবে পায় সেজন্য আমার পক্ষ থেকে সরকারি উচ্চ মহলে সার্বক্ষনিক যোগাযোগ করে যাচ্ছি, যাতে কোন মানুষের কষ্ট না হয়, ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম দফায়, দফায় চলছে এবং এই ত্রাণ বিতরণ পর্যায়ক্রমে সুবিধা বঞ্চিত লোকদের মধ্যে বিতরণ অব্যাহত থাকবে।

তিনি বলেন, আমি দীর্ঘ এক মাস যাবৎ এলাকায় অবস্থান করে আমার ব্যাক্তিগত পক্ষ থেকে এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে এলাকায়, এলাকায় গিয়ে ত্রান বিতরণ করে যাচ্ছি। আল্লাহ যেনে সকলকে এই মহামারী থেকে রক্ষা করেন। দোয়া করি আল্লাহ যেনো দেশ ও জাতিকে হেফাজত করেন।

তিনি কৃষকদের উদ্দেশ্যে বলেন, সরকার কৃষি উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষে বিনামূল্যে কৃষকদের মধ্যে সার ও বীজ বিতরণ করছেন। এ সুযোগ কাজে লাগিয়ে সকল অনাবাদি জমি চাষাবাদের আওতায় এনে কৃষি উৎপাদনে এগিয়ে আসার আহবান জানান। কৃষকরা যদি কৃষি খাতে আরো মনোনিবেশ হন তাহলে দেশে খাদ্য উৎপাদন আরো বৃদ্ধি পাবে।করোনা ভাইরাসের কারণে যে ক্ষতি হচ্ছে সকলের সহযোগিতার মাধ্যমে তা পুষিয়ে তুলা সম্ভব।

পৃথক, পৃথক স্থানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বালাগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাকুর রহমান মফুর, উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেবাংশু কুমার সিংহ, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা কৃষি অফিসার আকলিমা খাতুন, বালাগঞ্জ উপজেলা কৃষি অফিসার সুমন মিয়া, পুর্ব গৌরীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হিমাংশু রঞ্জন দাস, ঘিলাছড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হাজী লেইছ চৌধুরী, মাইজগাঁও ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সুফিয়ানুল করিম চৌধুরী, উত্তর কুশিয়ারা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আহমেদ জিলু, বালাগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আব্দুল মতিন, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা মুক্তিযুদ্ধা কমান্ডার আকরাম হোসেন প্রমুখ।